ব্যবসায় স্বর্ণযুগ শুরুর আশা

প্রথম আলো প্রকাশিত: ২৩ জুন ২০২২, ১৮:৩২

স্বপ্নের পদ্মা সেতু দক্ষিণবঙ্গের ২১টি জেলায় স্বর্ণযুগের সূচনা করবে। অবহেলিত এ জেলাগুলোর উন্নতি হবে। লাখো মানুষের কর্মসংস্থানের সুযোগ সৃষ্টি করবে এবং সর্বোপরি জাতীয় প্রবৃদ্ধি বাড়াতে ভূমিকা রাখবে। এমনই মনে করছেন ফরিদপুরের বিভিন্ন শিল্পপ্রতিষ্ঠানের মালিক, উদ্যোক্তা, রাজনৈতিক ও সামাজিক বিশিষ্ট ব্যক্তিরা।


ব্যবসায়ীদের শীর্ষ সংগঠন বাংলাদেশ শিল্প ও বণিক সমিতি ফেডারেশনের (এফবিসিসিআই) সাবেক সভাপতি ও দি মীর গ্রুপের চেয়ারম্যান মীর নাসির হোসেন বলেন, ‘পদ্মা সেতু আমাদের একটি স্বপ্নের প্রকল্প। প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার বলিষ্ঠ ও দূরদৃষ্টিসম্পন্ন নেতৃত্বে নিজেদের টাকায় নির্মিত একটি স্থাপনা। বিশ্বব্যাংক যখন মুখ ফিরিয়ে নিল, সেই সময় প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার বলিষ্ঠ এ উদ্যোগ বিশ্ববাসী অবাক বিস্ময়ে দেখেছে। এ কারণে এ সেতু আমাদের মর্যাদার প্রতীক।’


মীর নাসির হোসেন আরও বলেন, দক্ষিণবঙ্গ ছিল অবহেলিত। এ অঞ্চলের কোনো কোনো জেলার অর্থনৈতিক অবস্থা ছিল অনেক খারাপ। মানুষের জীবনযাত্রার মান ছিল নিম্নগামী। সে ক্ষেত্রে পদ্মা সেতু জাদুর কাঠি হিসেবে কাজ করবে। দেশের দক্ষিণ-পশ্চিমাঞ্চলের উন্নয়নে যুগান্তকারী ভূমিকা রাখবে এ সেতু। পদ্মায় সেতু উদ্বোধনের পরদিন থেকেই যানবাহন চলাচল শুরু হবে, রেলপথের নির্মাণকাজ চলছে। পাশাপাশি জাতীয় বিদ্যুৎ গ্রিডের নির্মাণকাজ চলছে, যা পায়রা সমুদ্রবন্দর ও ভোলার সঙ্গে যুক্ত হবে। এ অবস্থায় পদ্মা সেতু দিয়ে যদি গ্যাস নেওয়া সম্ভব হয়, তাহলে অভূতপূর্ব উন্নয়নের স্বর্ণদ্বার খুলে যাবে। কলকারখানা স্থাপিত হবে, লাখো মানুষের কর্মসংস্থান ঘটবে। পদ্মা সেতু জাতীয় অর্থনীতিতে প্রবৃদ্ধির হার বাড়াতে সহায়ক ভূমিকা রাখবে।


ফরিদপুর জেলা আওয়ামী লীগের সভাপতি ও একেএইচ গ্রুপের পরিচালক শামীম হক বলেন, পদ্মা সেতু ফরিদপুরসহ দক্ষিণবঙ্গের বিশাল পরিবর্তনের সুযোগ সৃষ্টি করে দেবে। এ সেতু ব্যবসায়ীদের জন্য উন্নয়নের দ্বার খুলে দেবে। ঢাকা থেকে গাজীপুর, কাঁচপুর বা সাভারে যাওয়া-আসা করতে যে সময় লাগে, তার অর্ধেক সময় লাগবে ফরিদপুরসহ এ অঞ্চলে আসতে। পাশাপাশি ওই অঞ্চল থেকে এ অঞ্চলে জমির দাম কম। শ্রমিকের সহজলভ্যতা রয়েছে। যার ফলে এ অঞ্চলে শিল্প প্রতিষ্ঠায় আগ্রহী হবেন শিল্পপতিরা। একটি শিল্পপ্রতিষ্ঠান গড়ে তুলতে যেসব অনুকূল পরিবেশ থাকা দরকার, তার সবকিছুই এ অঞ্চলে রয়েছে। শামীম হক আরও বলেন, ব্যাপকভাবে শিল্পপ্রতিষ্ঠান গড়ে তোলা হলে এ অঞ্চলের বেকারত্ব হ্রাস পাবে।

সম্পূর্ণ আর্টিকেলটি পড়ুন

সংবাদ সূত্র

News

The Largest News Aggregator
in Bengali Language

Email: [email protected]

Follow us