বিলিয়ন ক্যাপচার প্লাস ফোন। সংগৃহীত ছবি।

ই-কমার্স থেকে স্মার্টফোনে নাম লেখাল ভারতের ফ্লিপকার্ট

এই ফোনের বিশেষ ফিচার হলো- ডুয়েল রিয়ার ক্যামেরা। ফোনের পেছনের দিকে দুটি ১৩ মেগাপিক্সেল সেন্সরের সাথে আছে ডুয়েল ফ্ল্যাশ মডিউল এবং সেলফির জন্য আছে ৮ মেগাপিক্সেল ফ্রন্ট ক্যামেরা।

ফারজানা মাহাবুবা
সহ-সম্পাদক
প্রকাশিত: ১৩ নভেম্বর ২০১৭, ১৪:০৪ আপডেট: ১৯ আগস্ট ২০১৮, ১৬:৪৮
প্রকাশিত: ১৩ নভেম্বর ২০১৭, ১৪:০৪ আপডেট: ১৯ আগস্ট ২০১৮, ১৬:৪৮


বিলিয়ন ক্যাপচার প্লাস ফোন। সংগৃহীত ছবি।

(প্রিয়.কম) ভারতের ই-কমার্স জায়ান্ট ফ্লিপকার্ট স্মার্টফোন ব্যবসায় নাম লিখিয়েছে। প্রতিষ্ঠানটি তাদের বিলিয়ন ব্র্যান্ডের প্রথম ফোন ক্যাপচার প্লাস উন্মুক্ত করেছে। ফ্লিপকার্টের জন্য সবচেয়ে বড় বিভাগগুলোর মধ্যে একটি স্মার্টফোন এবং প্রতিষ্ঠানটি মার্কিন ই-কমার্স অ্যামাজনের সাথে প্রতিদ্বন্দ্বিতা করছে।

ডুয়েল রিয়ার ক্যামেরার এই ফোনের শুরুর দাম নির্ধারণ করা হয়েছে ১০ হাজার ৯৯৯ রুপি। এই ফোনের ডিজাইনে রয়েছে মেটালিক বডি এবং ৫.৫ ইঞ্চি ফুল এইচডি ডিসপ্লে সাথে ২.৫ডি ড্রাগনট্রেইল গ্লাস। অক্টা কোর স্ন্যাপড্রাগন ৬২৫ এসওসি প্রসেসরের এই ফোনে আছে ৩ জিবি এবং ৪ জিবি র‍্যামের সংস্করণ। আর ফোনের মেমোরি ১২৮ জিবি পর্যন্ত বাড়িয়ে নেওয়া যাবে। 

ক্যাপচার প্লাস ফোনের ব্যাকআপের জন্য রয়েছে ৩ হাজার এমএএইচ ব্যাটারি এবং প্রতিষ্ঠানের দাবি এই ফোনের ব্যাটারি লাইফ ৪৮ ঘন্টা। এছাড়াও ফোনটিতে কুইক চার্জ প্রযুক্তিসহ ইউএসবি টাইপ সি সমর্থন করে। ফ্লিপকার্ট জানিয়েছে, ১৫ মিনিট চার্জে এই ফোন ৭ ঘন্টা চলতে সক্ষম। 

এই ফোনের বিশেষ ফিচার হলো- ডুয়েল রিয়ার ক্যামেরা। ফোনের পেছনের দিকে দুটি ১৩ মেগাপিক্সেল সেন্সরের সাথে আছে ডুয়েল ফ্ল্যাশ মডিউল এবং সেলফির জন্য আছে ৮ মেগাপিক্সেল ফ্রন্ট ক্যামেরা। ফোনটি চলবে অ্যান্ড্রয়েড ন্যুগাট ৭.১.১ অপারেটিং সিস্টেমে। তবে ফোনটিতে গুগলের সর্বশেষ অ্যান্ড্রয়েড ওরিও হালনাগাদ পাওয়া যাবে। 

প্রসঙ্গত ফ্লিপকার্ট চলতি বছরের জুলাই মাসে নিজস্ব ব্র্যান্ড বিলিয়ন উন্মুক্ত করে। এই ব্র্যান্ডের অধীনে বিশেষভাবে ভারতীয় বাজারের জন্য তৈরি পণ্য বিক্রি করা হবে। ইলেকট্রনিক্স থেকে শুরু করে ব্যাকপ্যাক এবং অ্যাপ্লায়েন্স সবই হবে ভারতে তৈরি। 

সূত্র: গ্যাজেট ৩৬০

প্রিয় টেক/আশরাফ

পাঠকের মন্তব্য(০)

মন্তব্য করতে করুন


আরো পড়ুন

loading ...